বিশ্বব্যাপী মাইজভাণ্ডারী দর্শন তুলে ধরতে সাংগঠনিক তৎপরতা জোরদার করতে হবে- ইউএই আনজুমানে রহমানিয়া মইনীয়ার কাউন্সিলে হযরত শাহ্সূফী সৈয়দ সাইফুদ্দীন আহমদ আল হাসানী

বিশ্বব্যাপী মাইজভাণ্ডারী দর্শন তুলে ধরতে সাংগঠনিক তৎপরতা জোরদার করতে হবে-
ইউএই আনজুমানে রহমানিয়া মইনীয়ার কাউন্সিলেহযরত শাহ্সূফী সৈয়দ সাইফুদ্দীন আহমদ আল হাসানী

আনজুমানে রহমানিয়া মইনীয়া মাইজভাণ্ডারীয়া ইউএই কেন্দ্রীয় কাউন্সিল ও প্রতিনিধি সম্মেলন আজ ১৯ জুন আজমানস্থ রায়হান হোটেল মিলনায়তনে সম্মেলন প্রস্তুতি কমিটির আহবায়ক মুহাম্মদ জানে আলম দুলালের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত হয়। এতে প্রধান অতিথি ছিলেন মাইজভাণ্ডার দরবার শরীফের সাজ্জাদানশীন ও আন্জুমানে রহমানিয়া মইনীয়া মাইজভাণ্ডারীয়ার সভাপতি পীরে ত্বরীক্বত শাহসূফী মাওলানা সৈয়দ সাইফুদ্দীন আহমদ আল্-হাসানী ওয়াল হোসাইনী আল্-মাইজভাণ্ডারী (ম.জি.আ)। তিনি বলেন, অশান্ত সংঘাতমুখর বিশ্বে শান্তি প্রতিষ্ঠায় মাইজভাণ্ডারী দর্শনের ব্যাপক চর্চা ও অনুশীলন প্রয়োজন। শান্তি, সম্প্রীতি ও মানবতাবাদী চেতনায় পুষ্ট মাইজভাণ্ডারী দর্শনকে বিশ্ব পরিমণ্ডলে পৌঁছে দিতে সাংগঠনিক ও বুদ্ধিবৃত্তিক কার্যক্রম জোরদার করতে হবে। মধ্যপ্রাচ্যসহ বিভিন্ন দেশে আন্জুমানে রহমানিয়া মইনীয়া মাইজভাণ্ডারীয়ার সাংগঠনিক মজবুত ভিত্তি গড়ে তুলতে মাইজভাণ্ডারী ত্বরীক্বার অনুসারীদের সর্বোচ্চ ত্যাগ স্বীকার ও পরিশ্রম করে যেতে হবে। যেকোনো আদর্শিক প্রয়াস সফল করতে শক্তিশালী মজবুত সংগঠনের বিকল্প নেই বলে তিনি উল্লেখ করেন। হযরত সৈয়দ সাইফুদ্দীন আহমদ আল্-হাসানী বলেন, সুন্নিয়ত প্রচার ও মাইজভাণ্ডারী দর্শন চর্চা যতো বেগবান করা যাবে ততোই বিশ্বব্যাপী শান্তি, জননিরাপত্তা ও মানবাধিকার প্রতিষ্ঠার পথ সুগম হবে। পাশাপাশি ইহ জীবনের কল্যাণ ও পারলৌকিক মুক্তি হবে ত্বরান্বিত। প্রবাসীদেরকে ভ্রাতৃত্ববোধ, সম্প্রীতি ও ঐক্য বজায় রেখে দেশের সুনাম বৃদ্ধি ও দেশের উন্নতিতে অবদান রাখার তাগিদ দেন তিনি। সম্মেলনে বক্তব্য রাখেন, মুহাম্মদ আবদুল কুদ্দুস মাইজভাণ্ডারী, আলহাজ্ব আহমুদুর রহমান মাইজভাণ্ডারী, মুফতী মাওলানা বাকী বিল্লাহ আজহারী, মাওলানা নূরুল আমিন, হাফেজ মুহাম্মদ জহির উদ্দিন, মুহাম্মদ ওসমান, মুহাম্মদ রুহুল আমিন পাখি, ইউ এ ই আন্জুমান কমিটির সাংগঠনিক সম্পাদক মুহাম্মদ সেলিম, প্রচার সম্পাদক মুহাম্মদ আব্দুল জব্বার, অর্থ সম্পাদক মুহাম্মদ আফছার উদ্দিন, যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক মুহাম্মদ আজিম উদ্দিন প্রমুখ। অনুষ্ঠান সঞ্চালনায় ছিলেন সম্মেলন প্রস্তুতি কমিটির যুগ্ম আহবায়ক মুহাম্মদ জাবেদুল আলম জাফর। কাউন্সিলে ইউএই’র বিভিন্ন দেশ থেকে আন্জুমানের কর্মকর্তা ও সদস্যরা অংশগ্রহণ করেন। সম্মেলনে সর্বসম্মতিক্রমে মুহাম্মদ আবদুল কুদ্দুসকে সভাপতি ও মুহাম্মদ ওসমান আলীকে সাধারণ সম্পাদক করে ইউএই আন্জুমানে রহমানিয়া মইনীয়া মাইজভাণ্ডারীয়ার শক্তিশালী কমিটি গঠন করা হয়। শেষে দেশ ও বিশ্ববাসীর শান্তি ও কল্যাণ কামনায় মুনাজাত পরিচালনা করেন হযরত শাহসূফী সৈয়দ সাইফুদ্দীন আহমদ আল্-হাসানী (ম.জি.আ)।

This entry was posted in Uncategorized. Bookmark the permalink.

No Comments